বুধবার , ১৭ নভেম্বর ২০২১ | ৩০শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অর্থনীতি
  2. আইন-আদালত
  3. ক্যারিয়ার
  4. খেলাধুলা
  5. জাতীয়
  6. তরুণ উদ্যোক্তা
  7. ধর্ম
  8. নারী ও শিশু
  9. প্রবাস সংবাদ
  10. প্রযুক্তি
  11. প্রেস বিজ্ঞপ্তি
  12. বহি বিশ্ব
  13. বাংলাদেশ
  14. বিনোদন
  15. মতামত

করোনার ভ্যাকসিন পেল চট্টগ্রামের ১৩৬৫ এইচএসসি পরীক্ষার্থী

প্রতিবেদক
bdnewstimes
নভেম্বর ১৭, ২০২১ ৩:১২ অপরাহ্ণ


স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

চট্টগ্রাম ব্যুরো: চট্টগ্রামে এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন প্রয়োগ শুরু হয়েছে। প্রথম দিনে এক হাজার ৩৬৫ জন পরীক্ষার্থীকে ভ্যাকসিনের প্রথম ডোজ দেওয়া হয়েছে।

মঙ্গলবার (১৬ নভেম্বর) দিনভর চট্টগ্রামের তিনটি কলেজের শিক্ষার্থীদের ভ্যাকসিন দেওয়া হয়েছে। কলেজগুলো হচ্ছে— চট্টগ্রাম সরকারি কলেজ, চট্টগ্রাম সরকারি মহিলা কলেজ ও বাংলাদেশ মহিলা সমিতি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজ (বাওয়া)।

জেলা সিভিল সার্জনের কার্যালয়ের ব্যবস্থাপনায় চট্টগ্রাম নগরীর তিনটি কেন্দ্রে আটটি বুথে শিক্ষার্থীদের ভ্যাকসিন দেওয়া হয়েছে। কেন্দ্রগুলো হচ্ছে— চট্টগ্রাম গ্রামার স্কুলের (সিজিএস) চট্টেশ্বরী রোডের ক্যাম্পাস, লালখান বাজারের মরিস ব্রাউন ইন্টারন্যাশনাল স্কুল ও আকবরশাহ এলাকার মীর্জা ইস্পাহানি স্কুল। ভ্যাকসিন কারা পাবে সেটি নির্ধারণ করছে মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তার কার্যালয়।

করোনার ভ্যাকসিন পেল চট্টগ্রামের ১৩৬৫ এইচএসসি পরীক্ষার্থী

জেলা সিভিল সার্জনের কার্যালয়ের ইপিআই কর্মকর্তা হামিদ আলী জানিয়েছেন, শিক্ষার্থীদের ফাইজারের ভ্যাকসিন দেওয়া হচ্ছে। প্রথম দিনে আটটি বুথে দুই হাজার ভ্যাকসিন দেওয়ার প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছিল। ভ্যাকসিন নিয়েছেন এক হাজার ৩৬৫ জন।

সকালে চট্টগ্রাম গ্রামার স্কুল কেন্দ্রে গিয়ে দেখা যায়, শিক্ষার্থীরা লাইনে দাঁড়িয়ে ভ্যাকসিন নিচ্ছেন। প্রথম ডোজ ভ্যাকসিন পেয়ে খুবই খুশি শিক্ষার্থীরা। তারা জানিয়েছেন, সুরক্ষা অ্যাপের মাধ্যমে তাদের নিবন্ধন করতে হয়নি। কলেজ কর্তৃপক্ষই পরীক্ষার্থীদের নিবন্ধন সম্পন্ন করেছে।

করোনার ভ্যাকসিন পেল চট্টগ্রামের ১৩৬৫ এইচএসসি পরীক্ষার্থী

চট্টগ্রাম কলেজের পরীক্ষার্থী সন্তু দাশ সারাবাংলাকে বলেন, ‘নিবন্ধনের ঝামেলা আমাদের করতে হয়নি। কলেজ কর্তৃপক্ষের তালিকায় নাম আসার পর এখানে এসেছি। এখানে স্বাস্থ্যকর্মীরা খুবই সুন্দরভাবে ভ্যাকসিন দিয়েছেন। আমার খুব ভালো লাগছে।’

মোহাম্মদ আলী নামে এক শিক্ষার্থী সারাবাংলাকে বলেন, ‘প্রথম ডোজ নেওয়ার পর এখন অনেক নিরাপদ মনে হচ্ছে। তবে ভ্যাকসিন নেওয়ার কারণে আমাদের হয়ত একটু জ্বর আসতে পারে বলে শুনেছি। এতে আমাদের দুয়েকদিন পড়ালেখায় সমস্যা হতে পারে। অনুরোধ থাকবে, পরের ডোজটা যেন আমাদের পরীক্ষার পরে দেওয়া হয়।’

করোনার ভ্যাকসিন পেল চট্টগ্রামের ১৩৬৫ এইচএসসি পরীক্ষার্থী

জেলা সিভিল সার্জন ডা. মোহাম্মদ ইলিয়াস চৌধুরী সারাবাংলাকে বলেন, ‘প্রতিদিন দুই হাজার করে শিক্ষার্থীর তালিকা পাঠানোর কথা আমাদের বলা হয়েছে। সে হিসেবে আমরা প্রস্তুতি রেখেছি। আরও ১০-১২ দিন ভ্যাকসিন দেওয়ার প্রস্তুতি আমাদের আছে। সেই পরিমাণ ভ্যাকসিনও আমাদের মজুত আছে।’

চট্টগ্রামের মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা এস এম জিয়াউল হায়দার হেনরী সারাবাংলাকে বলেন, ‘চট্টগ্রাম শহরের বাসিন্দা ৩৫ হাজার এইচএসসি পরীক্ষার্থী আছে। ২৫ নভেম্বরের মধ্যে আমরা তাদের সবার ভ্যাকসিন দেওয়া শেষ করব। এরপর আমরা শহরের বাইরের পরীক্ষার্থীদের ভ্যাকসিন দেওয়া শুরু করব। এইচএসসি পরীক্ষা শুরুর আগেই আমরা ধাপে ধাপে সব পরীক্ষার্থীকে ভ্যাকসিনের আওতায় নিয়ে আসব।’

ছবি: শ্যামল নন্দী

সারাবাংলা/আরডি/টিআর





Source link

সর্বশেষ - খেলাধুলা